অবশেষে ভোজ্য তেলের দাম নির্ধারণে কমিটি

0
39

গ্রামীণ টাইমস: আন্তজার্তিক বাজারের সঙ্গে সমন্বয় করে ভোজ্য তেলের দাম নির্ধারণে একটি কমিটি করেছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। সরকারের উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের পাশাপাশি কমিটিতে ব্যবসায়ী প্রতিনিধিরাও রয়েছেন বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি।

গতকাল রবিবার সচিবালয়ে ভোজ্য তেল ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বৈঠক শেষে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা জানান। বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আন্তর্জাতিক বাজারে ভোজ্য তেলের মূল্য কমবেশি হওয়ার কারণে দেশে তা উঠানামা করে। তাই সমস্যার গভীরে গিয়ে আমরা সমাধানের চেষ্টা চালাচ্ছি।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, দেশে চাহিদার ৯০ শতাংশ ভোজ্য তেল আমদানি করতে হয়। তাই যখন আন্তর্জাতিক বাজারে দাম বেড়ে যায়, সেটার প্রভাব পড়ে। তিনি বলেন, গত জুলাই মাসে প্রতি টন সয়াবিন ৭০০ ডলার ছিল, সেটা ১ হাজার ১০০ ডলারের ওপরে উঠেছে। মাঝখানে ১ হাজার ১৯০ ডলারও হয়েছিল। এ হিসাবে ৭৫ শতাংশের ওপরে দাম বেড়েছে। এর প্রভাব পড়েছে দেশের বাজারে।

আন্তর্জাতিক বাজারের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে ভোজ্য তেলের মূল্য নিশ্চিত করা হবে জানিয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, কাউকে সুযোগ নিতে দেওয়া হবে না। তিনি বলেন, সব ব্রান্ডের খোলা ভোজ্য তেল কনজুমার প্যাক/বোতলে বিক্রয়ের ব্যবস্থা করা হচ্ছে, যাতে সহজেই ব্র্যান্ড চেনা যায় এবং ভেজাল প্রতিরোধ করা যায়। এ বিষয়ে শিল্প মন্ত্রণালয় কাজ করছে বলে জানান তিনি।

বৈঠকে ব্যবসায়ীরা হয়রানি এড়াতে ভোজ্য তেল আমদানিতে চার স্তরের ডিউটি আগের মতো এক স্তরে নিয়ে আসতে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়কে অনুরোধ জানান। এ ব্যাপারে ইতিমধ্যে এনবিআরকে চিঠি দেওয়া হয়েছে জানিয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, এখনো কোনো উত্তর আসেনি। আবার চিঠি দেওয়া হবে বলে জানান তিনি।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আসন্ন পবিত্র রমজান মাসকে সামনে রেখে নিত্যপ্রয়োজনীয় সব পণ্য পর্যাপ্ত পরিমাণে আমদানি ও মজুত করার জন্য ব্যবসায়ীদের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া বাণিজ্য মন্ত্রণালয় টিসিবির মাধ্যমে প্রতি বছরের মতো সাশ্রয়ী মূল্যে নিত্যপণ্য বিক্রয় করবে। এবার পণ্য বিক্রয়ের পরিমাণ গত বছরের প্রায় তিন গুণ হবে বলে জানান বাণিজ্যমন্ত্রী।

গতকাল বৈঠকে বাণিজ্য সচিব ড. মো. জাফর উদ্দীন, বাংলাদেশ ট্রেড অ্যান্ড ট্যারিফ কমিশনের চেয়ারম্যান মুনশী শাহাবুদ্দীন আহমেদ, জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বাবলু কুমার সাহা, বাংলাদেশ ফরেন ট্রেড ইনস্টিটিউটের পরিচালক মো. ওবায়দুল আজম, টিসিবির চেয়ারম্যান ব্রি. জে. মো. আরিফুল হাসান, মেঘনা গ্রুপের চেয়ারম্যান মোস্তফা কামাল প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

-এমএসআইএস

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here